বিষয়বস্তুতে চলুন

উইকিভ্রমণ থেকে

হাইতি (হাইতীয় ক্রেওল: Ayiti, ফরাসি: Haïti) হিস্পানিওলা দ্বীপের পশ্চিম অর্ধেকের একটি ক্যারিবীয় দেশ। হাইতির অতীত সমস্যাযুক্ত ছিল এবং এর ভবিষ্যত এখনও অনিশ্চিত। কয়েক দশকের দারিদ্র্য, পরিবেশগত অবক্ষয়, সহিংসতা, অস্থিতিশীলতা, স্বৈরাচার ও অভ্যুত্থান এবং একটি বিধ্বংসী ভূমিকম্প ইত্যাদি এটিকে পশ্চিম গোলার্ধের সবচেয়ে দরিদ্র জাতিতে পরিণত করেছে। দারিদ্র্যের কারণে অস্থির হয়ে পড়া পর্যটকদের সম্ভবত অন্য কোথাও যাওয়া উচিত। ধৈর্যবান এবং খোলা মনের পর্যটকদের জন্য হাইতি একটি সমৃদ্ধ সংস্কৃতির দেশ যা উত্তর-ঔপনিবেশিক দেশগুলোর মধ্যে অনন্য।

অঞ্চলসমূহ[সম্পাদনা]

হাইতির অঞ্চল, রং করা মানচিত্র
  মধ্য হাইতি
দেশের কেন্দ্রস্থলে হাইতির জনসংখ্যা কেন্দ্র। এটি রাজধানীর চারপাশের বিস্তৃত।
  উত্তর হাইতি
রাজধানীর বাইরের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ শহর এখানে অবস্থিত। কেপ-হাইতিয়ানের নিকটবর্তী সৈকত পর্যটকদের কাছে বেশ প্রিয়।
  দক্ষিণ হাইতি
দেশের ক্যারিবীয় অংশ যা কিনা দেশটির সবচেয়ে কম ব্যস্ত অঞ্চল।

কী দেখবেন[সম্পাদনা]

সানস সুচি প্রাসাদের ধ্বংসাবশেষ

পোর্ট-অউ-প্রিন্সের কিছু ল্যান্ডমার্ক, কাঠামো এবং মূর্তি রয়েছে, যেমন একটি বড় জোড়া হাত পৃথিবীকে ধরে রেখেছে। এর মধ্যে অনেকগুলো বিমানবন্দরের কাছাকাছি। এই শহরটি হাইতির বৃহত্তম এবং ভূমিকম্পে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। শহরের অনেক অংশ পুনর্গঠন হয়েছে, তারপরও আপনি এখনও বিপর্যয়ের প্রমাণ, যেমন ভূমিকম্পে ভেঙে যাওয়া ভবন দেখতে পাবেন। শহরের বাইরে অল্প দূরত্বে গেলেই ধ্বংসযজ্ঞ সম্পর্কে ভালো ধারণা পাবেন। "তাঁবুর গ্রামে" এখনও মানুষ বাস করে, যা প্রায় দুই মাইল পর্যন্ত বিস্তৃত এবং এসব তাঁবু মাটিতে আটকে থাকা লাঠির উপরে ছোট ছোট টারপ দিয়ে তৈরি। আপনি যেতে যেতে ভূমিকম্পের পরে খনন করা গণকবরগুলোর একটির পাশ দিয়ে যেতে পারেন, তবে আপনি সম্ভবত বুঝতে পারবেন না যে এটি একটি কবর। এটি একটি ছোট পাহাড়ের পাশে অবস্থিত এবং তার উপর ঘাস বেড়ে উঠেছে। গণকবরগুলোয় কোন চিহ্ন নেই কিন্তু আপনি মাঝে মাঝে সেখানে মানুষ বা স্মৃতিতে ফুল রাখা দেখতে পাবেন।

হাইতির অনেক সুন্দর দৃশ্য রয়েছে কিন্তু জানতে হবে তার সঠিক অবস্থান। আপনি যদি এই অঞ্চলটি ভালভাবে জানেন এমন কারও সাথে ভ্রমণ করেন বা থাকেন তবে কাছাকাছি কোন সুন্দর সৈকত বা পাহাড়ী এলাকা আছে কিনা তা জিজ্ঞাসা করুন। সেন্ট মার্ক এবং অন্যান্য কয়েকটি শহরের সাথে, একটি সুন্দর পর্বতশ্রেণী রয়েছে যা হাইক করা যেতে পারে। এই পাহাড়ের চূড়ায় রয়েছে কিছু ঐতিহাসিক নিদর্শন, স্থাপনা এবং সমুদ্রের অবিশ্বাস্য দৃশ্য।

কী করবেন[সম্পাদনা]

চ্যাম্পস-ডি-মার্স একসময় হাইতির সবচেয়ে সুন্দর পার্ক ছিল কিন্তু এখন ভূমিকম্পে গৃহহীন মানুষদের তাঁবুতে ঢেকে গিয়েছে। এটি সকলের জন্য উম্মুক্ত স্থান যেখানে ভূমিকম্পের আগে সবাই বেড়াতে এবং বিশ্রাম নিতে আসত। এটি জাতীয় প্রাসাদের কাছে অবস্থিত।

বিষয়শ্রেণী তৈরি করুন