এই নিবন্ধের জন্য GPX ফাইল ডাউনলোড করুন

এশিয়া > দক্ষিণ এশিয়া > বাংলাদেশ > রাজশাহী বিভাগ > পাবনা জেলা > পাবনা > ঈশ্বরদী উপজেলা

ঈশ্বরদী উপজেলা

উইকিভ্রমণ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন

ঈশ্বরদী উপজেলা বাংলাদেশের রাজশাহী বিভাগের পাবনা জেলার অন্তর্গত একটি ঐতিহাসিক এবং গুরুত্বপূর্ণ প্রশাসনিক উপজেলা।

দর্শনীয় স্থান[সম্পাদনা]

লালন শাহ সেতু
  • পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ে অফিস
  • পাকশী রিসোর্ট
  • ঈশ্বরদী রেলওয়ে জংশন - প্রায় ১শ' বছরের পুরোনো ব্রিটিশ আমলে নির্মিত রেলওয়ে জংশন ‌ঈশ্বরদী রেল জংশন স্টেশন ও ইয়ার্ড'। এটি দেশের প্রাচীনতম এবং অন্যতম বৃহৎ রেল স্টেশন এবং জংশন। এটি ঈশ্বরদী রেলওয়ে জংশন ঈশ্বরদী পৌরসভা সদরে অবস্থিত।
  • নর্থ বেঙ্গল পেপার মিলস লিঃ
  • বাংলাদেশ ইক্ষু গবেষনা ইন্সটিটিউট
  • আঞ্চলিক কৃষি ও ডাল গবেষনা কেন্দ্র
  • মিরকামারী লিচু উৎসব (মৌসুমি)
  • ঈশ্বরদী রপ্তানি প্রক্রিয়াকরণ অঞ্চল - বাংলাদেশের একটি বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল, যা বাংলাদেশের উত্তরাঞ্চলের শহর পাবনার অদূরে ঈশ্বরদী এলাকায় অবস্থিত। এই রপ্তানি প্রক্রিয়াকরণ অঞ্চলটি ২০০১ খ্রিষ্টাব্দে স্থাপিত হয়।
  • হার্ডিঞ্জ ব্রীজ - বাংলাদেশের পাবনা জেলার ঈশ্বরদী উপজেলার পাকশী রেলওয়ে স্টেশন সংলগ্ন একটি রেলসেতু। এটি বাংলাদেশের সবচেয়ে দীর্ঘ রেলসেতু হিসেবে পরিচিত।
  • লালন শাহ সেতু
  • ঈশ্বরদী বিমান বন্দর
  • পাকশী ফুরফুরা শরীফ
  • রুপপুর পারমানবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র
  • সাড়াঘাট
  • পাবনা চিনি কল লিমিটেড

কিভাবে যাবেন[সম্পাদনা]

বাস, ট্রেন দুইভাবেই যাওয়া যায় । ৫-৬ ঘন্টার মত সময় লাগে।

রেল

এখানে রেলে করেও যাওয়া যায়।

  • ধূমকেতু(শনিবার বন্ধ) ছাড়ে সকাল ৬ টায়
  • সুন্দরবন(বুধবার বন্ধ) ছাড়ে সকাল ৬.২০ মিনিটে
  • সিরাজগঞ্জ(শনিবার বন্ধ) ছাড়ে বিকাল ৫ টায়
  • পদ্মা(মঙ্গলবার বন্ধ) ছাড়ে রাত ১১.১০ মিনিটে
  • সিল্কসিটি(রবিবার বন্ধ) ছাড়ে দুপুর ২.৪০ মিনিটে
  • চিত্রা (সোমবার বন্ধ) ছাড়ে সন্ধ্যা ৭ টায়

ভাড়া - শোভন- ২৪৫

বাস
  • পাবনা এক্সপ্রেস, ঈশ্বরদী এক্সপ্রেস - বিকাল ৩ টার পর আবার রাত ১০ টা ১১ টায় দুইটা বাস আছে ঢাকায় আসার জন্য। ভাড়া - ৩৫০।

কোথায় থাকবেন[সম্পাদনা]

ঈশ্বরদী বাজারেই আবাসিক হোটেল আছে।

খাদ্য[সম্পাদনা]

ঈশ্বরদীতে খাওয়ার মত অনেক হোটেল আছে। প্যারা সন্দেশ নামে স্থানীয় খাবার রয়েছে। পোষ্ট অফিস মোড়ের পাবনা দই ঘরের প্যারা সন্দেশ পাওয়া যায়। বিষয়শ্রেণী তৈরি করুন